রবিবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২১, ০৫:২৪ অপরাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ
দৈনিক আলোকিত উখিয়ায় আপনাকে স্বাগতম

করোনায় মৃৎশিল্পের দুর্দিন

  • সময় রবিবার, ১ আগস্ট, ২০২১
  • ২১৬ বার পড়া হয়েছে

চাটমোহর (পাবনা) প্রতিনিধি :
করোনাভাইরাস প্রতিরোধে সরকার যে সব বিধিনিষেধ আরোপ করেছে,তাতে নিম্ন আয়ের অনেক পেশার মানুষ ক্ষতির শিকার। তারা পড়েছেন জীবিকার কষ্টে। এমনই একটি পেশা মৃৎশিল্প। এমনিতেই কালের বিবর্তনে দিন দিন হারিয়ে যেতে বসেছে মৃৎ শিল্প। এরপর করোনার ছোবল। কুমারপাড়ার মৃৎ শিল্পের সাথে জড়িত বাসিন্দাদের পরিবারে নেমে এসেছে দুর্দিন। মৃৎ শিল্পিদের চাকা আজ আর তেমন ঘোরে না। তবুও বাপ-দাদার পেশা আঁকড়ে ধরে আছে অনেকেই। আবার কেউ কেউ জীবিকার তাগিদে পেশা বদল করেছে। আধুনিকতার ছোঁয়ায় চাহিদাও হারিয়ে মাটির তৈরী পণ্যসামগ্রী। পাবনার চাটমোহর পৌর সদরের জিরো পয়েন্ট মহল্লার মহন্ত বাড়ির বাসিন্দা শ্রী হরিপদ পালের ছেলে শ্রীপদ কুমার পাল মাটির তৈরী নানা রঙের মাটির ব্যাংক, শিশুদের জন্য রকমারী নকশার পুতুল, ছোট ছোট হাড়ি, পাতিল, কড়াই, নানান ধরণের পাখি, হাতি, ঘোড়া, বাঘ, ফুলদানি, ফলমূলসহ নানা খেলনা বিক্রি করছেন। শ্রীপদ কুমার পাল জানান,করোনাকালে কঠোর লকডাউনে চাকা ঘুরছে না। কোন কাজ নেই। তাই এসব অন্যত্র থেকে পাইকারী দরে কিনে এনে বিক্রি করছি। সারাদিন যা বিক্রি হয় তা প্রয়োজনের তুলনায় অতি নগন্য। দুর্দিনে কাটছে আমাদের জীবন। শ্রীপদ পালের মতো মৃৎ শিল্পীদের জীবন কাটছে নানা সংকটে। তবুও জীবন সংগ্রামে প্রাণপণ লড়ে যাচ্ছেন অবিরাম। শ্রীপদ পালের মতো চাটমোহর উপজেলার নিমাইচড়া,মূলগ্রাম,হরিপুর ও পৌর এলাকার পালপাড়ার মৃৎশিল্পের সাথে জড়িত ২ শতাধিক কুমার পরিবার অনেক কষ্টে দিন কাটাচ্ছে।

Please Share This Post in Your Social Media

আরো সংবাদ
%d bloggers like this: