শুক্রবার, ২৯ অক্টোবর ২০২১, ০১:৪০ পূর্বাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ
দৈনিক আলোকিত উখিয়ায় আপনাকে স্বাগতম

স্বর্ণ-টাকাসহ সন্তান নিয়ে প্রবাসীর স্ত্রী উধাও!

  • সময় সোমবার, ১ মার্চ, ২০২১
  • ১৫০ বার পড়া হয়েছে

নাটোরের গুরুদাসপুরে নগদ টাকা ও স্বর্ণালংকারসহ ৭ বছরের ছেলে সন্তান নিয়ে পালিয়েছেন এক প্রবাসীর স্ত্রী। গত ২৫ ফেব্রুয়ারি উপজেলার মশিন্দা ইউনিয়নের মাঝপাড়া গ্রামে ওই ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় স্বামী ওই রাতেই গুরুদাসপুর থানায় একটি লিখিত অভিযোগ করেছেন।

জানা গেছে, ওই গ্রামের মৃত রমজান আলীর ছেলে প্রবাসী মো. আবুল বাশার (৩২) এর সাথে পার্শ্ববর্তী তাড়াশ উপজেলার মাগুড়া গ্রামের মো. নিজাম উদ্দিনের মেয়ে সম্পা খাতুনের (২৫) বিয়ে হয় ২০১৩ সালে। বিয়ের চার মাস পরে স্ত্রীকে রেখে সৌদি আরবে যান আবুল বাশার। বিয়ের এক বছর পরে তাদের ঘরে একটি পুত্র সন্তান জন্ম গ্রহণ করে। যার বয়স এখন ৭ বছর চলছে। ২০২০ সালের সেপ্টেম্বর মাসে সৌদি থেকে তিনি বাসায় আসেন। বাসায় আসার কিছুদিনের মধ্যেই আবুল বাশারের মা অসুস্থ বোধ করলে তিনি তার মাকে নিয়ে হাসপাতালে আসলে তাদের অগোচরে বাড়িতে থাকা ১৭ ভরি স্বর্ণের অলংকার যার আনুমানিক বাজার মূল্য প্রায় ১২ লক্ষ টাকাসহ তার ৭ বছরের সন্তান মো. বাধন পারভেজকে নিয়ে তার স্ত্রী পালিয়ে যায়। তবে কিভাবে কার সাথে পালিয়ে গিয়েছে তা এখন পর্যন্ত সন্ধান পাওয়া যায়নি।
ভুক্তভোগী প্রবাসী আবুল বাশার জানান, তিনি তার স্ত্রী সন্তানকে খুব ভালোবাসতেন। তাদের কোন চাহিদা কখনও অপূর্ণ রাখেননি। সৌদি থাকা অবস্থায় তার স্ত্রী সম্পা খাতুনকে তিনি দুই বার ওমরা হজ্বও করিয়েছেন। কয়েকদিন পূর্বে বাসায় এসে তার মা অসুস্থ হওয়ায় গুরুদাসপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসার জন্য নিয়ে যান। তাদের অগোচরে তার স্ত্রী বাড়িতে থাকা নগদ ৫ লক্ষ টাকা ও ১৭ ভরি স্বর্ণ অলংকারসহ তার ৭ বছরের ছেলেকে নিয়ে পালিয়ে গিয়েছেন। তবে সঙ্গে সঙ্গেই তার স্ত্রীর পরিবার-পরিজনদেরকে তার উধাও হওয়ার বিষয়টি জানানো হয়েছে এবং বিভিন্ন জায়গায় অনেক খোঁজাখুঁজি করেও তাকে পাওয়া যায়নি। তিনি তার পালিয়ে যাওয়া স্ত্রী ও সন্তানকে খুঁজে পাওয়ার জন্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ৫০ হাজার টাকা পুরুষ্কারও ঘোষণা করেছেন।

এ বিষয়ে গুরুদাসপুর থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ আব্দুর রাজ্জাক জানান, এ বিষয়ে তদন্ত চলছে। আশা করি খুব দ্রুত সময়ের মধ্যে তাদের সন্ধান পাওয়া যাবে।

Please Share This Post in Your Social Media

আরো সংবাদ
%d bloggers like this: