রবিবার, ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২১, ০৯:০৬ অপরাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ
দৈনিক আলোকিত উখিয়ায় আপনাকে স্বাগতম

বাউফলে পানিতে ডুবে তিন শিশুর মৃত্যু!

  • সময় রবিবার, ২১ ফেব্রুয়ারী, ২০২১
  • ৪৭ বার পড়া হয়েছে

মুঃ জিল্লুর রহমান জুয়েল,জেলা প্রতিনিধি (পটুয়াখালী)।

পটুয়াখালী বাউফলের কাছিপাড়া ইউনিয়নে পানিতে ডুবে একই পরিবারের দুইটি শিশু ভাই-বোনসহ ০৩ জনের মৃত‍্যু ঘটনা ঘটেছে।

স্থানীয় প্রতিনিধির পাঠানো তথ্যে জানা যায়,একই ইউনিয়নের আনারশিয়া গ্রামের খান বাড়ির হিরন খানের স্নেহের দুই সন্তান তানহা (৮) ও ছেলে তাসিম (১৩ মাস ) বয়সী দুই ভাইবোন পুকুরে পড়ে এ মর্মান্তিক মৃত্যুর ঘটনা ঘটে।

জানা গেছে, হিরন খান ঢাকাতে একটি কোম্পানিতে চাকুরি করেন। চাকুরির সুবাদে অনেক দিন পর অফিস থেকে ছুটি নিয়ে শুক্রবার সকালে বাড়িতে আসেন এবং পরিবার নিয়ে ছুটির দিনগুলো আনন্দের সাথে কাটাবে এমন মনভাব নিয়ে ঢাকা থেকে আসেন কিন্তু সেই আনন্দ মুহূর্তের মধ্যেই শেষ করে দিল গোটা পরিবারের।

স্থানীয় সুত্রে জানা যায়, ১৯ ফেব্রুয়ারী-২০২১ ইং বিকাল পাচটার দিকে হিরন খান তার সন্তানদের নিয়ে বাড়ির উঠানে খেলাধুলা করে। কিছুক্ষণ পরে বাচ্চাদের খেলনা দিয়ে উঠানে রেখে পিতা হিরন ওয়াস রুমে যায়,ওই সময় দুই সন্তান তানহা ও তাসিম খেলতে খেলতে পুকুরের পাশে যায় এবং তাসিম হঠাৎ পুকুরে পড়ে গেলে ছোট ভাই তাসিম কে বাঁচাতে পুকুরে লাফ দেয় কিন্তু তানহা ভাইকে পানিতে ডুব অবস্থায় ধরে রাখতে পারেনি। অন্যদিকে,হিরনের স্ত্রী সালমা বেগম (৩০) রান্নাঘরে রান্নাবান্নার কাজে ব্যাস্ত ছিলেন।

পিতা হিরন ওয়াস রুম থেকে এসে তানহা ও তাসিমকে বাড়ির উঠানে না দেখতে পেয়ে খোজাঁখুজি শুরু করে। তখন চিৎকার শুরু করলে বাড়ির আশেপাশের লোকজন ভীড় করে এবং তানহা ও তাসিমকে খুঁজাখুজি শুরু করে সবাই। হঠাৎ পুকুরের ঘাটের নিচে পানি গোলা দেখে হিরন ও তার চাচাতো ভাই পুকুরে লাফ দেয় এবং ডুবন্ত অবস্থায় তানহা ও তাসিন কে উপরে উঠানো হয়।

ছোট ছেলে তাসিন তখন আর নেই কিন্তু তানহাকে স্থানীয় লোকজন দ্রুত কালিশুরী স্লোব হাসপাতালে নিয়ে যায় এবং স্লোব হসপিটালের কর্তব্যরত চিকিৎসক তানহাকেও মৃত বলে ঘোষণা করেন।

অন‍্যদিকে একই ইউনিয়নের পাকডাল গ্রামের রানা মাষ্টারের ছেলে অপূর্ব (৬)খেলতে গিয়ে পুকুরে ডুবে না ফেরার দেশে পাড়ি জমায় এই করুন মৃত্যুতে এলাকায় শোকের ছায়া বয়ে চলছে।

পানিতে ডুবে যাওয়া শিশুদের পরিবারের সার্বিক সহযোগীতার বিষয়ে ২০ ফেব্রুয়ারী শনিবার বিকেল সারে ৪ টার দিকে বাউফল উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ জাকির হোসেন এর মুঠোফোনে যোগাযোগ করলে তিনি কল রিসিভ না করায় ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের বিষয়ে কিছু জানা যায়নি।

Please Share This Post in Your Social Media

আরো সংবাদ
%d bloggers like this: