মঙ্গলবার, ২৭ অক্টোবর ২০২০, ০৭:০১ অপরাহ্ন

নীলা হত্যা মামলার প্রধান আসামি মিজানুর ৭ দিনের রিমান্ডে

  • সময় রবিবার, ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০২০
  • ৭৯ বার পড়া হয়েছে

সাভারে স্কুলছাত্রী নীলা রায়কে হত্যা মামলার প্রধান আসামি মিজানুর রহমানের ৭ দিনের রিমান্ড আবেদন মঞ্জুর করেছেন আদালত। শনিবার (২৬ সেপ্টেম্বর) বিকেলে শুনানি শেষে ঢাকার সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট রাজীব হাসান এ আদেশ দেন। এর আগে, মামলার তদন্ত কর্মকর্তা সাভার থানার উপপরিদর্শক (এসআই) নির্মল চন্দ্র দাস আসামিকে আদালতে হাজির করে দশ দিনের রিমান্ড আবেদন করেন।

শুক্রবার রাত ১০টার দিকে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সাভারের রাজফুলবাড়িয়া এলাকার কর্নেল ব্রিক ফিল্ডের পাশে পারভেজের টিনসেড বাড়ির একটি কক্ষ থেকে দু্‌ই সহযোগীসহ মিজানুরকে গ্রেফতার করা হয়। এ সময় তাদের কাছ থেকে নীলা রায় হত্যাকাণ্ডে ব্যবহৃত দুটি রক্তমাখা ছুরি উদ্ধার করা হয়।

গ্রেফতারকৃতরা হলেন, সাভারের দক্ষিণপাড়া এলাকার আব্দুর রহমানের ছেলে মামলার প্রধান আসামি মিজানুর রহমান চৌধুরী (২১), একই এলাকার সিরাজুল ইসলাম সিরুর ছেলে সাকিব (২০) ও জয় (২০)। এরা সবাই এই হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত বলে জানিয়েছে পুলিশ।

তিনি জানান, ঘটনার পর থেকেই আত্মগোপনে ছিল মামলার প্রধান অভিযুক্ত মিজান। এর আগে মিজানের এক সহযোগীকে আটক করা হয়। কিন্তু বারবার অবস্থান পরিবর্তনের কারণে মিজানকে ধরতে বেশ বেগ পেতে হয় আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে। সর্বশেষ শুক্রবার রাতে সাভার মডেল থানা ও ঢাকা জেলা গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি উত্তর) এর যৌথ অভিযান চালিয়ে সাভারের রাজফুলবাড়িয়া এলাকা থেকে মিজানসহ তার দুই সহযোগীকে গ্রেফতার করা হয়।

এর আগে গত মঙ্গলবার গভীর রাতে সর্বপ্রথম এই হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে মামলার মূল অভিযুক্ত মিজানের অন্যতম সহযোগী সেলিম পালোয়ানকে (৪২) আটক করা হয়। পরবর্তীতে র‌্যাব-৪ এর একটি অভিযানে এই মামলার ২য় ও ৩য় আসামি মিজানের বাবা মো. আব্দুর রহমান (৬০), ও তার মা নাজমুন্নাহার সিদ্দিকাকে (৫০) মানিকগঞ্জ জেলার সিংগাইর উপজেলার চারিগ্রাম এলাকা থেকে আটক করা হয়। এখন পর্যন্ত এই মামলায় মোট ৬ জনকে গ্রেফতার করেছে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী।

হত্যার শিকার নীলার পরিবারের অভিযোগ, দীর্ঘদিন ধরে নীলাকে প্রেমের প্রস্তাব দিয়ে আসছিল একই এলাকার বাসিন্দা মিজানুর রহমান। আব্দুর রহমান-নাজমুন্নাহার দম্পতির সন্তান মিজান এইচএসসি পরীক্ষার্থী। নীলা তার প্রেমের প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করার কারণেই সে হত্যা করেছে নীলাকে। ওই ঘটনায় নীলার বাবা নারায়ণ রায় গত ২১ সেপ্টেম্বর রাতে মিজান, তার বাবা আব্দুর রহমান ও মা নাজমুন্নাহার সিদ্দিকাসহ অজ্ঞাতনামা আরও কয়েকজনকে আসামি করে সাভার থানায় মামলাটি দায়ের করেন। গত ২০ সেপ্টেম্বর কিশোরী নীলা রায়কে ভাইয়ের কাছ থেকে ছিনিয়ে নিয়ে হত্যা করে মিজানুর।

Please Share This Post in Your Social Media

আরো সংবাদ
%d bloggers like this: