রবিবার, ২৫ অক্টোবর ২০২০, ০৭:৪৩ পূর্বাহ্ন

ঘুমাচ্ছে তারপরও সাওয়াব গুনাহ হয়

  • সময় রবিবার, ১৩ সেপ্টেম্বর, ২০২০
  • ৭৫ বার পড়া হয়েছে

মাওঃ হাফেজ শরীফুল ইসলাম::
কিন্তু আমলের ফেরেশতা তার আমলনামায় গুনাহ লিখে যাচ্ছে।
সে নামাজ পড়ছে,
তাও ফেরেশতা তার আমলনামায় গুনাহ লিখে যাচ্ছে।
সে খাচ্ছে কিংবা পড়াশোনা করছে কিংবা চুপচাপ বসে আছে,
তবুও তার আমলনামায় গুনাহ লিখা হচ্ছে।
কিন্তু কেন?
তার অপরাধটা কি?
কারণ সে কিছু না করলেও অনেকগুলো নন-মাহরামের চোখ তার ফেসবুকে আপলোড দেওয়া ছবি দেখে যাচ্ছে।
যখনই কেউ একজন তার ছবি দেখছে, আমলের ফেরেশতা তার আমলনামায় একটি গুনাহ লিখে নিচ্ছেন।
সে যদি মারাও যায় তবুও আমলের ফেরেশতা তার আমলনামায় গুনাহ লিখেই যাবেন।
কারণ তার ছবি গুলো যে নন-মাহরাম রা দেখছে! সহজ কথায় ছবিগুলো তার জন্য গুনাহে জারিয়া হিসেবে কাজ করছে।
আবার সে হয়তো কোন গান কিংবা মুভির লিংক শেয়ার করেছে।
তার থেকে অনুপ্রাণিত হয়ে যতজন সেটা শুনেছে কিংবা দেখেছে সমপরিমাণ গুনাহ তার একাউন্টেও জমা হয়ে গেছে। কি ভয়ংকর হিসাব!
অন্যদিকে কেউ হয়তো এই সামাজিক মাধ্যমগুলোতে অন্যদের দাওয়াত দিচ্ছে!
নাসীহাহমূলক পোস্ট দিচ্ছে,কুরআনের কথা শেয়ার করছে কিংবা বিভিন্ন আমল শেয়ার করছে।
তাদের ক্ষেত্রে ব্যাপারটা একদম উল্টো।
যতজনই তাদের মাধ্যমে কোনভাবে উপকৃত হচ্ছে কিংবা নতুন কিছু শিখে আমল করছে! অটোমেটিকেলি তাদের একাউন্টেও সমপরিমাণ সওয়াব জমা হয়ে যাচ্ছে।
কি সুন্দর হিসাব সুবহানাল্লাহ!
মৃত্যুর পরও তাদের এসব কাজ তাদের জন্য সদকায়ে জারিয়া হিসেবে কাজ করবে ইনশাআল্লাহ।
আচ্ছা আমরা কি চাইব এমন কিছু দুনিয়াতে করে যেতে যা কিনা মৃত্যুর পর আমাদের কষ্টটা প্রতিনিয়ত বাড়িয়ে দিবে?
নাকি আমরা এমন কিছু রেখে যেতে চাইব যা প্রতিনিয়ত আমাদের নেকির পাল্লা ভারি করে দিয়ে আমাদের কবরটাকে সৌন্দর্যমন্ডিত করতে থাকবে?

Please Share This Post in Your Social Media

আরো সংবাদ
%d bloggers like this: