শুক্রবার, ০২ অক্টোবর ২০২০, ০২:০২ পূর্বাহ্ন

অপুকে বাদ দিয়ে নেওয়া হল মাহিকে

  • সময় বৃহস্পতিবার, ২০ আগস্ট, ২০২০
  • ৬৬ বার পড়া হয়েছে

অপু বিশ্বাস নয়, ‘আশীর্বাদ’ সিনেমায় নায়িকা হিসেবে নেয়া হলো মাহিয়া মাহিকে। বুধবার দিবাগত রাতে মাহি ছবিটিতে আনুষ্ঠানিকভাবে চুক্তিবদ্ধ হয়েছেন বলে জানিয়েছেন ছবিটির প্রযোজক জেনিফার ফেরদৌস। ছবিটিতে মাহির বিপরীতে নায়ক হিসেবে থাকবেন রোশান।

এর আগে আশীর্বাদ সিনেমার শুটিং এর জন্য চুক্তিপত্র স্বাক্ষরের কথা জানিয়েছিলেন অপু বিশ্বাস। সোমবার (১৭ আগস্ট) রাত ১২:০৮ মিনিটে নিজের ভেরিফাইড ফেসবুক পেইজে এই তথ্য জানান তিনি। সেখানে অপু বিশ্বাস বলেন, ‘আশীর্বাদ’ সিনেমার জন্য সবার আশীর্বাদ চাই।’ কিন্তু হঠাৎই এমন পরিবর্তন কেনো তা জানা জায়নি।

২০১৯-২০২০ অর্থবছরে সরকারি অনুদানে পূর্ণদৈর্ঘ্য ১৬টি চলচ্চিত্রকে অনুদান দেওয়া হয়েছে। এগুলোর মধ্যে অন্যতম ‘আশীর্বাদ’। এর প্রযোজক ও কাহিনিকার জেনিফার ফেরদৌস। এটি পরিচালনা করবেন জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারজয়ী নির্মাতা মোস্তাফিজুর রহমান মানিক।

চুক্তি স্বাক্ষরের পর ছবির প্রযোজক,পরিচালক ও নায়কের সঙ্গে স্থিরচিত্র সামাজিক যোগাযোগা মধ্যমে শেয়ার করেছেন মাহি।

মাহি বলেন, মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক এই ছবির সুবর্ণা চরিত্রটি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন ছাত্রীর চরিত্র। মুক্তিযুদ্ধের আগের উত্তাল রাজনীতি এবং মুক্তিযুদ্ধের পটভূমি নিয়ে ছবিটি নির্মাণ করা হচ্ছে। প্রধান চরিত্রে থাকতে পেরে তিনি উচ্ছ্বসিত।

চলচ্চিত্রটির গল্প শুনে মুগ্ধ ছবির নায়ক রোশানও। তিনি গণমাধ্যমে জানান, এরকম ছবির একটা অংশ হতে পেরে আমার ভালো লাগছে। তাছাড়া মাহিকে আমার বিপরীতে আমি নিজেকে খুবই লাকি মনে করছি কেননা মাহিয়া একজন মেগাস্টার এতে কোনো সন্দেহ নেই। ছবির চুক্তি অনুষ্ঠানেই তার সাথে আমার চমৎকার বোঝাপড়া হয়ে গেছে।

ছবিতে মাহিকে চূড়ান্ত করা প্রসঙ্গে প্রযোজক জেনিফার বলেন, ‘সরকারি অনুদান পাওয়ার পর থেকেই আশীর্বাদ ছবির প্রধান নারী চরিত্র সুবর্ণার জন্য নায়িকা খুঁজছিলাম। অবশেষে মাহিয়া মাহিকে আমরা চুক্তিবদ্ধ করেছি। আশা করছি ইন্ডাস্ট্রির শীর্ষ নায়িকার সঙ্গে আমাদের কাজের দারুণ অভিজ্ঞতা হবে।’

এর আগে মঙ্গলবার প্রযোজক জেনিফার ফেরদৌস ছবিটি থেকে অপু বিশ্বাসকে বাদ দেয়ার ঘোষণা দেন। তিনি জানান, অপু বিশ্বাসের অপেশাদারিত্বের কারণেই এ সিনেমা থেকে তাকে বাদ দেয়া হয়েছে। যদিও অপু বলেছেন, তাকে বাদ দেয়া হয়নি। তিনি নিজেই ছবিটি ছেড়ে দিয়েছেন।

Please Share This Post in Your Social Media

আরো সংবাদ
%d bloggers like this: