মঙ্গলবার, ২৭ অক্টোবর ২০২০, ০৬:৩৯ অপরাহ্ন

শুভ জন্মাষ্টমী উপলক্ষে জেলায় হিন্দু ধর্মীয় কল্যাণ ট্রাস্টের প্রার্থনা ও আলোচনা সভা

  • সময় মঙ্গলবার, ১১ আগস্ট, ২০২০
  • ৯৪ বার পড়া হয়েছে

প্রেস বিজ্ঞপ্তি:
নানা মাঙ্গলিক অনুষ্ঠানের মধ্যে দিয়ে পরমমেশ্বর ভগবান শ্রীকৃষ্ণের শুভ আবির্ভাব তিথি জন্মাষ্টমী উদ্যাপিত হয়েছে। এ উপলক্ষে মঙ্গলবার সন্ধ্যায় শহরের ঘোনারপাড়াস্থ শ্রীশ্রী কৃষ্ণানন্দধাম মন্দির প্রাঙ্গনে হিন্দু ধর্মীয় কল্যাণ ট্রাস্ট্রের উদ্যোগে স্বাস্থ্যবিধি মেনে আয়োজন করা হয় বিশেষ প্রার্থনা, গীতাপাঠ ও আলোচনা সভার। হিন্দু ধর্মীয় কল্যাণ ট্রাস্ট্রের ট্রাস্টি বাবুল শর্মার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন জেলা পূজা উদ্যাপন পরিষদের সভাপতি এডভোকেট রনজিত দাশ। তিনি বলেন-মহাবতার ভগবান শ্রীকৃষ্ণ ছিলেন একজন সমাজ সংস্কারক। সমাজ থেকে অন্যায়-অত্যাচার, নিপীড়ন ও হানাহানি দ‚র করে মানুষে মানুষে অকৃত্রিম ভালোবাসা ও স¤প্রীতির বন্ধন গড়ে তোলাই ছিল শ্রীকৃষ্ণের ম‚ল দর্শন। যেখানেই অন্যায়-অবিচার এ ধরাধামকে গ্রাস করেছে সেখানেই শ্রীকৃষ্ণ আবির্ভূত হয়েছেন আপন মহিমায়। শ্রীকৃষ্ণের আদর্শ ও শিক্ষা বাঙালির হাজার বছরের সা¤প্রদায়িক স¤প্রীতি, সৌহার্দ্য ও ভ্রাতৃত্বের বন্ধনকে আরও সুদৃঢ় করবে। আর ভগবান শ্রীকৃষ্ণের কৃপা বৈশ্বিক মহামারি থেকে আমাদের রক্ষা করবে। জেলা পূজা উদ্যাপন পরিষদের কর্মকর্তা সাংবাদিক বলরাম দাশ অনুপমের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত উক্ত অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলা জন্মাষ্টমী উদ্যাপন পরিষদের সভাপতি স্বপন পাল নাজির, জেলা হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদের সাধারণ সম্পাদক সাবেক ট্রাস্টি অধ্যাপক প্রিয়তোষ শর্মা চন্দন, জেলা পূজা উদ্যাপন পরিষদের সহ-সভাপতি রতন দাশ, উদয় শংকর পাল মিঠু, জেলা জন্মাষ্টমী উদ্যাপন পরিষদের সাধারণ সম্পাদব বিশ্বজিত পাল বিশু, শ্রীশ্রী কৃষ্ণানন্দধাম কার্যনির্বাহী পরিষদের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি দুলাল দাশ, সহ-সভাপতি অধ্যাপক উত্তম কুমার ভৌমিক, সাধারণ সম্পাদক নারায়ন কান্তি দাশ, পৌর পূজা উদ্যাপন পরিষদের সভাপতি বেন্টু দাশ, মন্দির ভিত্তিক শিশু ও গণশিক্ষা কার্যাক্রমের সহকারী প্রকল্প পরিচালক বিশ্বজিৎ ব্যানার্জি, পৌর পূজা কমিটির সাধারণ সম্পাদক মিটুন কান্তি দে। প্রার্থনা অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন-শ্রীশ্রীকৃষ্ণানন্দধামের সেবায়েত অপু কৃষ্ণ দাস, মন্দির ভিত্তিক শিশু ও গণশিক্ষা কার্যাক্রমের কর্মকর্তা আষীশ দত্ত, মৃদুল মল্লিক, পরিমল কান্তি দে প্রমুখ।

Please Share This Post in Your Social Media

আরো সংবাদ
%d bloggers like this: