শুক্রবার, ২২ নভেম্বর ২০১৯, ০২:৪৩ অপরাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ
দৈনিক আলোকিত উখিয়ার অনলাইন পোর্টালে আপনাকে স্বাগতম। আপনার চারপাশে চলমান অনিয়ম দুর্নীতির খবর আমাদের জানান। দেশকে বাচাঁন দেশকে ভালবাসুন

কক্সবাজারে বডি ম্যাসেজ ব্যবসার আড়ালে চলছে যৌনতা!

  • সময় রবিবার, ২০ অক্টোবর, ২০১৯
  • ৬৩৬ বার পড়া হয়েছে

আলোকিত ডেস্কঃ
ক্যাসিনু নিয়ে দেশে ঘঠে গেল এক লঙ্কা কান্ড। ক্যাসিনুর আড়ালে মাদক আর অনৈতিকতার অভিযোগ ছিল সর্বক্ষনে। কিন্তু দেশের যুব সমাজকে ধ্বংস করতে আর সামাজিক নৈতিকতাকে লুপ্ত করতে শুরু হয়েছে আরও একটি ব্যবসার নামে যৌনতা। আর তা হলো স্পা। যা সাধারনতা ভদ্র সমাজে ম্যাসেজ করাকে চিহ্নিত করে। আর এ স্পা ব্যবসার আড়ালে যে হারে বেড়েছে যৌনতা আর দেহ ব্যবসা তার দিকে খেয়াল নেই অনেকরে এমন অভিযোগ সচেতন মহলের। নিবন্ধন বিহীন আর উচ্চ মুল্যের এ ব্যবসার কোন আয়কর ও ভ্যাট দিচ্ছেনা ক্ষতিপয় ব্যবসায়ী। বিশেষ করে কলাতলি হোটেল মোটেল জোনে ৮টি স্পা কেন্দ্রের মধ্যে উইন্ডো ট্যারিস থাই স্পা ও হংকং থাই স্পা কেন্দ্রে বেশী অনৈতিকতা চলে বলে জানান স্থানিয়রা। কিন্তু প্রভাবশালীদের কারনে কেউ কিছু বলতে সাহস পাচ্ছেনা বলে জানান তারা।

জানা যায়, দেশী বিদেশী পর্যটকদের ঘিরে গড়ে তুলেছে এ ম্যাসেজের নামে যৌনতা আর দেহ ব্যবসা। হোটেল মোটেল জোনের অলিতে গলিতে এ স্পা গুলোর বিজ্ঞাপনের প্লে কার্ড শোভা পাচ্ছে। স্থানিয়রা জানান, শহরের হোটেল মোটেল জোন এলাকায় শুধু তাদের এ ব্যবসা। পর্যটন কেন্দ্রীক এ ব্যবসায় সুন্দরী নারীদের দিয়ে হাতিয়ে নিচ্ছে কোটি কোটি টাকা। জেলার বিভিন্ন এলাকা থেকে সুন্দরী নারীদের এনে আর কলেজ বিশ^বিদ্যালয়ে পড়–য়া ছাত্রীরা এসব কাজে জড়িত বলে জানান প্রত্যক্ষদর্শিরা। যদিও এগুলো পরিচালিত হচ্ছে নারীদের দিয়ে। কিন্তু পর্দার আড়ালে রয়েছে রাগববোয়ালরা। কক্সবাজার হোটেল মোটেল জোনে এপর্যন্ত অনুসন্ধানে ৮টি স্পা কেন্দ্র রয়েছে। এগুলো হচ্ছে, এ্যারোমা স্পা, উইন্ডো ট্যারেস স্পা, এঞ্জ্যালা টাচ থাই স্পা, হংকং থাই স্পা, রিল্যেক্স থাই স্পা, সী-প্রিন্সেস থাই স্পা, ওশান প্যারেডাইস ও সায়মন বীচ এ স্পা পরিচালিত হচ্ছে। একটি প্রভাবশালী মহলের ছত্রছায়ায় এ সমস্থ স্পা কেন্দ্র গুলো বিভিন্ন অভিজাত হোটেলে মাসিক রুম ভাড়া নিয়ে এ ব্যবসা পরিচালনা করছে। ৩/৪টা রুম মাসে ২ লাখ থেকে আড়াই লক্ষ টাকা মাসিক ভাড়া চুক্তি করে নির্ভয়ে চালিয়ে যাচ্ছে তাদের অবৈধ ব্যবসা। আর ভিন্ন ভিন্ন কলা কৌশলে সুন্দরী নারীরা হাতিয়ে নিচ্ছে লক্ষ লক্ষ টাকা। ধনাঢ্য পরিবারের ছেলেরা আর বিদেশী কিছু পর্যটক এবং এনজিওতে কাজ করা কর্মকর্তারা মুলতা এর মুল গ্রাহক। বিভিন্ন আইটেমের দাম বিভিন্ন রকম। ঘন্টায় ২০০০ টাকা থেকে শুরু করে ৫০০০ টাকা পর্যন্ত মুল্য নির্ধারন আছে। প্রতিটি স্পা কেন্দ্রে ৫ থেকে ১০/১৫ জন সুন্দরী নারী থাকে। আপনি চাইলে সেখান থেকে যে কোন পছন্দ মত নারীকে নিয়ে ম্যাসেজ করাতে পারেন। সকাল ১০ টা থেকে রাত ১০টা পর্যন্ত এসব স্পা কেন্দ্রগুলো খোলা থাকে বলে জানান তারা। ইচ্ছে হলে পারেন টাকার বিনিময়ে ভোগ করতে এমনটি জানালেন কলাতলির ভার্সিটি পড়–য়া যুবক রুবেল। কলাতলী সুগন্ধা পয়েন্টের এক ব্যবসায়ী (নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক) বলেন, কলাতলীতে উইন্ডো ট্যারেস থাই স্পার নাম দিয়ে কিছু লোক নারী দেহ ব্যবসা খুলে বসে আছে। আমাদের চোখের সামনে তা দেখছি। আইনশৃংখলা বাহিনী তা দেখে ও না দেখার ভান করে। যুব সমাজকে রক্ষা করতে হলে এগুলো বন্ধ করা দরকার।

শহরের বাহারছড়া এলাকার রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব নাজিম উদ্দিন বলেন, আমরা জা জেনেছি, তা হলো স্পা নামক এ ব্যবসা হলো অভিজাত পতিতা ব্যবসা। বডি ম্যাসেজের নামে অবাদ যৌনতা। তারা ব্যবহার করে সুন্দরী নারীদের। এ ব্যবসাগুলো বন্ধে জেলা পুলিশ সুপারকে জরুরী পদক্ষেপ নিতে জোর দাবী জানাচ্ছি।
সুশিল সমাজের অন্যতম, বিশিষ্ট সাংবাদিক কামাল উদ্দিন রহমান পিয়ারু বলেন, মুলতঃ স্পা ব্যবসার নামে অভিজাত পতিতা ব্যবসা চলছে বলে আমিও শুনেছি। যুব সমাজকে রক্ষা করতে হলে এ ব্যবসা বন্ধ হওয়া উচিত। সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে এ বিষয়ে পদক্ষেপ গ্রহনের জন্য দাবী জানাচ্ছি।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে কক্সবাজার সদর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ সৈয়দ আবু মোঃ শাহজাহান কবির বলেন, আমি নতুন মাত্র যোগদান করেছি। এধরনের ব্যবসা চালালে আমরা অভিযানের মাধ্যমে তা বন্ধ করে দেব। পর্যটন শহরে কোন ভাবেই অনৈতিক কাজ হতে দেবনা। কালই এ বিষয়ে খতিয়ে দেখবো।

Comments Below
  •  
  •  
  •  

সংবাদটি শেয়ার করুন

আরো সংবাদ
Shares