মঙ্গলবার, ২২ অক্টোবর ২০১৯, ০৭:৪৭ অপরাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ
দৈনিক আলোকিত উখিয়ার অনলাইন পোর্টালে আপনাকে স্বাগতম। আপনার চারপাশে চলমান অনিয়ম দুর্নীতির খবর আমাদের জানান। দেশকে বাচাঁন দেশকে ভালবাসুন

সিদ্ধিরগঞ্জে মা-মেয়েসহ ৩ জনকে গলাকেটে হত্যা ।।

  • সময় বৃহস্পতিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৯
  • ৪৪ বার পড়া হয়েছে

এস.কে মাসুদ রানা (বিশেষ) প্রতিনিধি ।।
সিদ্ধিরগঞ্জে নিজ বাসায় মা ও দুই কন্যা শিশুকে গলাকেটে হত্যা করা হয়েছে । ঘটনাস্থল থেকে রক্তাক্ত জখম অবস্থায় ঘটনাস্থল থেকে আরো এক শিশুকে উদ্ধার করা হয়েছে। তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।
বৃহস্পতিবার (১৯ সেপ্টেম্বর) সকালে সিদ্ধিরগঞ্জের সিআইখোলা এলাকার আনোয়ার সাহেবের বাড়ির ৬তলা ভবনের ৬ তলার একটি ফ্ল্যাটে এ ঘটনা ঘটে। ঢাকা থেকে ফরেনসিক বিভাগের একটি দল ঘটনাস্থলে পৌঁছেছে।
নিহতরা হল- সিদ্ধিরগঞ্জের সিআইখোলা এলাকার বাসিন্দা সুমনের স্ত্রী নাজমিন (২৮), দুই মেয়ে নুসরাত (৮) ও খাদিজা (২)। আহত হয়েছে নাজমিনের বোনের মেয়ে সুমাইয়া (১২)। ঘটনার পর থেকেই নিহত নাজমিনের ভগ্নিপতি ও আহত সুমাইয়ার বাবা আব্বাস পলাতক রয়েছে।

ইতিমধ্যেই নারায়ণগঞ্জ জেলা পুলিশ সুপার হারুন অর রশীদ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। পুলিশ প্রাথমিকভাবে ধারণা করছে, পারিবারিক কলহের জের ধরে নিহত নাজমিনের বোনের স্বামী আব্বাস এ হত্যাকান্ড ঘটিয়েছে।
পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, নিহত নাজমিনের স্বামী সুমন সানাড়পাড় এলাকায় জোনাকি পাম্প স্টেশনের চাকরী করে। ডিউটি শেষে সকালে সুমন বাসায় ফিরে দেখে স্ত্রী ও দুই কন্যার লাশ পড়ে আছে। পরে তার ডাক চিৎকারে আশেপাশের লোকজন এসে পুলিশকে খবর দেয়।
জানা যায়, নিহত নাজমিন ও আব্বাস দুটি পরিবার পাশাপাশি বাসায় থাকত। ঘটনার দুই দিন আগে নাজমিনের সঙ্গে তাঁর বোনের স্বামী আব্বাসের ঝগড়া হয়। ঝগড়ার সময় নাজমিন আব্বাসকে চড় থাপ্পড় মারেন। এই ঘটনার জেরে এই হত্যাকান্ড ঘটানো হয়েছে বলে ধারণা করছে পুলিশ।
পরিদর্শন শেষে নারায়ণগঞ্জ জেলা পুলিশ সুপার হারুন অর রশীদ জানান, পুলিশ এখনো ঘটনাস্থলে রয়েছে। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে পারিবারিক কলহের জের ধরে এ হত্যাকান্ড ঘটানো হয়েছে। বিস্তারিত এখনও নিশ্চিত করে কিছু বলা যাচ্ছে না। ঢাকা থেকে ফরেনসিক বিভাগের একটি টিম এসেছে। তদন্ত চলছে।

Comments Below
  •  
  •  
  •  

সংবাদটি শেয়ার করুন

আরো সংবাদ
Shares